Fact Check: পুলিশের বিক্ষোভকারীদের গ্রেপ্তারের ভাইরাল ভিডিও উত্তরপ্রদেশের নয়, তেলেঙ্গানার

0 11

পুলিশ লোকেদের তাদের বাড়ি থেকে টেনে নিয়ে যাচ্ছে এবং তাদের গ্রেপ্তার করছে, এমন একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে, দাবি করা হয়েছে যে এগুলি উত্তর প্রদেশের ছবি।

ভিডিওটি একটি ক্যাপশন সহ ফেসবুকে শেয়ার করা হয়েছে:  “शाम को 5:00 बजे रैली निकाली RSS वालों को काट डालो और 7:00 बजे शाम को योगी सरकार का रिजल्ट”

এইখানে উপরের পোস্টের (‌ post )‌ লিঙ্ক পাবেন।

FACT CHECK

নিউজমোবাইল উপরোক্ত দাবিটির সত্য-পরীক্ষা করেছে এবং এটি বিভ্রান্তিকর বলে মনে করেছে।

ভিডিও ফুটেজ পুঙ্খানুপুঙ্খভাবে পরীক্ষা করে আমরা একটি বোর্ড দেখতে পেলাম যেটির গায়ে ‘শাফফ’ লেখা রয়েছে। আমরা শাফফ প্যাকেজড পানীয় জল ( Shaffaf packaged drinking water ) নামে একটি দোকানের ঠিকানা খুঁজে পেয়েছি, যা হায়দরাবাদের শালিবন্দে অবস্থিত।

এই দোকানের রাস্তার দৃশ্য (‌ street view )‌ গুগল-এও দেখা যায়। নীচে ভাইরাল ভিডিও ও গুগল–এ পাওয়া রাস্তার দৃশ্যের মধ্যে তুলনা করা হল। এর থেকে স্পষ্ট যে ভিডিওটি তেলেঙ্গানার।

একই ভিডিওটি ২৫ আগস্ট, ২০২২-এ একটি ইউটিউব চ্যানেলে (‌ YouTube channel )‌ আপলোড করা হয়েছিল এই ক্যাপশন সহ: “পুলিশ ঘরে ঢুকে মারছে এবং গ্রেপ্তার করছে | শালিবান্দায় মুসলমানদের উপর হায়দরাবাদ পুলিশের বর্বরতা”

আরও অনুসন্ধান করে, আমরা ২৫ আগস্ট সিয়াসত ডেইলির (‌ Siasat Daily )‌ যাচাইকৃত চ্যানেলে একজন প্রতিবেদকের দ্বারা সম্প্রচারিত একটি সাক্ষাৎকার পেয়েছি। প্রতিবেদক এক মহিলার সঙ্গে কথা বলছিলেন যাঁর ছেলেদের পুলিশ তাঁর বাড়িতে ঢুকে আটক করেছে।

এছাড়াও, সিয়াসাত ডেইলি (‌ Siasat Daily )‌ ওয়েবসাইট ২৪ আগস্ট একই ঘটনার কথা জানিয়েছিল। নিবন্ধ অনুসারে: “বরখাস্ত করা বিজেপি বিধায়কের বিরুদ্ধে তাঁর নবি মহম্মদ সম্পর্কে অবমাননার মন্তব্যের  কারণে বিক্ষোভ বেড়ে গেলে বুধবার রাতে শহরের পুলিশ বেশ কয়েকটি বাড়িতে ঢুকে পড়ে এবং শালিবান্দা ও এর আশেপাশে মুসলিম যুবকদের টেনে বার করে নিয়ে যায়। দিনের শুরুতে যে শান্তিপূর্ণ পরিবেশ বিরাজ করছিল তা শেষ হয়ে গেল, কারণ রাজা সিংয়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদকারী ৫০ জনেরও বেশি লোককে হেফাজতে নেওয়া হয়েছিল।

এইভাবে, উপরের তথ্য থেকে এটা স্পষ্ট যে তেলেঙ্গানায় পুলিশকে বিক্ষোভকারীদের গ্রেফতার করার ভিডিওটি উত্তরপ্রদেশের বলে মিথ্যাভাবে শেয়ার করা হয়েছে।