Fact Check: রাহুল গান্ধীর ক্লিপ করা ভিডিও বিভ্রান্তিকর দাবি সহ ভাইরাল

0 21

কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধীর ভাষন দেওয়ার ১৪ সেকেন্ডের একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় ঘুরে বেড়াচ্ছে। ভাষনে তাঁকে পেট্রোল দিয়ে ভারতীয় অর্থনীতিতে জ্বালানি এবং ইঞ্জিন কিকস্টার্ট করার কথা বলতে শোনা যায়। লিটারে ময়দা মাপার মতোই অর্থহীন কথাবার্তার জন্য ব্যবহারকারীরা এই ক্লিপটি শেয়ার করছেন।

একজন ফেসবুক ব্যবহারকারী এই ক্যাপশন দিয়ে ভাইরাল ভিডিওটি পোস্ট (‌posted )‌ করেছেন:‌ मुझे तो राहुल गांधी के भाषण का इसलिए इंतजार रहता है क्यूँकि जब भी बंदा बोलता है, कच्चा मसाला मिलता है पोस्ट करने को.. ‘अब पेट्रोल से ट्रैक्टर-ट्रक चलाएंगे राहुल बाबा’ यह काम सिर्फ राहुल बाबा ही कर सकते हैं जब आटा लीटर में दे सकते हैं तो ट्रैक्टर-ट्रक को पेट्रोल डालकर चला भी सकते हैं

(অনুবাদ: আমি রাহুল গান্ধীর ভাষনের জন্য অপেক্ষা করি কারণ যখনই লোকটি কথা বলে, আমি পোস্ট করার জন্য কাঁচা মশলা পাই.. ‘ এখন রাহুল বাবা পেট্রোল দিয়ে ট্রাক্টর-ট্রাক চালাবেন’ এই কাজটি কেবল রাহুল বাবাই করতে পারেন যদি তিনি লিটারে আটা দিতে পারেন তাহলে পেট্রোল দিয়ে ট্রাক্টর-ট্রাক চালাতেও পারেন।)

আপনি পোস্টটি দেখতে পারেন এখানে (‌ here )‌।

Fact Check
নিউজমোবাইল ভাইরাল ভিডিওটির সত্যতা যাচাই করেছে এবং দাবিটি বিভ্রান্তিকর বলে দেখতে পেয়েছে।

ভিডিওটির কিফ্রেমের রিভার্স ইমেজ সার্চ আমাদের ভারতীয় জাতীয় কংগ্রেসের অফিসিয়াল হ্যান্ডেলে ২০ এপ্রিল, ২০১৯-এর একটি টুইটে ( tweet )  নিয়ে যায়। ১২:০০ থেকে শুরু হওয়া কিফ্রেমগুলি ভাইরাল ভিডিওর সঙ্গে হুবহু মিলে যায়, এবং টুইটটি থেকে বোঝা যায় যে এটি ছত্তিশগড়ের ভিলাইয়ে রাহুল গান্ধীর জনসভার।

পুরো ২৩ মিনিটের ভিডিওটি দেখে আমরা জানতে পারি যে গান্ধী ভারতীয় অর্থনীতিতে একটি জাম্প স্টার্ট দেওয়ার জন্য কংগ্রেসের-এর ন্যূনতম মজুরি সহায়তা কর্মসূচি ন্যায় যোজনার (‌ NYAY Yojna )‌ সুবিধার কথা বলছিলেন। বিষয়টি ব্যাখ্যা করতে তিনি পেট্রোল এবং একটি ইঞ্জিনের সাদৃশ্য ব্যবহার করেছিলেন। ভিডিওটি থেকে এটি স্পষ্ট যে ভাইরাল ক্লিপটি এমনভাবে ক্লিপ করা হয়েছে যাতে উপমাটিকে প্রেক্ষাপটের বাইরে উপস্থাপন করা হয় এবং গান্ধীকে ব্যঙ্গ করা যায়।

আমরা পলিটিক্যাল হাব নামে একটি যাচাইকৃত চ্যানেলের ২০ এপ্রিল, ২০১৯-এ ইউটিউব-এ আপলোড করা একই ভাষণের একটি সংক্ষিপ্ত ১৪-মিনিটের সংস্করণ খুঁজে পেয়েছি। ভিডিওতে ভাষনের শিরোনাম ছিল: ভিলাই, ছত্তিশগড়ে রাহুল গান্ধীর ভাষন‌ | লোকসভা নির্বাচন ২০১৯ ( Rahul Gandhi Speech in Bhilai, Chhatisgarh | Loksabha Elections 2019 )‌, এবং এটি টুইটের ভাষনের সঙ্গে মিলে যায়। ১১:১২–এ শুরু হওয়া ভিডিও কিফ্রেমগুলি ভাইরাল ভিডিওর সঙ্গে হুবহু মিলে যায়৷

এখানেও পেট্রোল ও ইঞ্জিনের সাদৃশ্য দেওয়ার আগে আমরা গান্ধীকে ছত্তিশগড়ের জনগণকে ন্যায় যোজনার সুবিধাগুলি ব্যাখ্যা করতে শুনতে পাচ্ছি।

অবশেষে আমরা এই শিরোনামে একটি সংবাদ নিবন্ধ দেখতে পেলাম: ন্যায় প্রকল্প ভারতের অর্থনীতির জন্য ‘পেট্রোল’ হবে: রাহুল গান্ধী (‌ Nyay scheme will be ‘petrol’ for India’s economy: Rahul Gandhi )‌।  ২০ এপ্রিল, ২০১৯-এ দ্য পায়ওনিয়ার প্রকাশিত নিবন্ধটি ভিডিওগুলির বক্তব্যই সমর্থন করে৷ নিবন্ধ অনুসারে, প্রস্তাবিত প্রকল্পে প্রতি বছর দরিদ্র পরিবারগুলিকে ৭২,০০০ টাকা দেওয়ার কথা ছিল, এবং একে দারিদ্র্যের উপর ‘‌সার্জিক্যাল স্ট্রাইক’‌ হিসাবে ভাবা হয়েছিল।

অতএব, আমাদের অনুসন্ধানের থেকে এটা স্পষ্ট যে রাহুল গান্ধীর পেট্রোল দিয়ে ভারতীয় অর্থনীতিতে জ্বালানি দেওয়ার এবং ইঞ্জিন চালু করার কথা বলার ক্লিপ করা ভিডিওটি প্রসঙ্গ ছাড়াই অনলাইনে শেয়ার করা হয়েছে এবং এটি বিভ্রান্তিকর।